লাইফস্টাইল

মাইগ্রেন থেকে মুক্ত থাকার ৮টি উপায়

এম.বি.বি.এস, সি.সি.ডি। চিকিৎসক, শিক্ষক ও স্বাস্থ্য বিষয়ক লেখক। ফিচার লেখক, প্রথম আলো।

মাইগ্রেন একধরণের মাথাব্যথা। সাধারণত মাথার একদিকে হলেও তা মাথার দুই দিকেও হতে পারে। তবে মাইগ্রেনে শুধু মাথাব্যথাই হয়না। এর সাথে আরো কয়েকটি স্নায়বিক উপসর্গও হয়ে থাকে। যেমন: কিছু আলো বা শব্দের অনুভুতি। উপসর্গ অনুযায়ী মাইগ্রেনের মধ্যেও অনেক রকমফের আছে। মাইগ্রেনের আক্রমণ কমানো, মাথাব্যথা ও বমি ভাব উপশমের জন্য বেশ কিছু কার্যকর ওষুধ রয়েছে। এগুলো অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী সেবন করা উচিত। মাইগ্রেন চিকিৎসায় তাৎক্ষণিক এবং প্রতিরোধক ওষুধের পাশাপাশি কিছু নিয়ম-কানুন মেনে চললে সমস্যা অনেকাংশে কমে যায়। চলুন মাইগ্রেন থেকে মুক্ত থাকতে এরকম ৮টি উপায় জেনে নেই-

১. প্রতিদিন নির্দিষ্ট সময়ে ঘুমাতে হবে।

২. ঘুম হতে হবে পরিমিত।

৩. অতিরিক্ত বা কম আলোতে কাজ করা যাবে না।

৪. কড়া রোদ বা তীব্র ঠাণ্ডা পরিহার করতে হবে।

৫. উচ্চশব্দ ও কোলাহলপূর্ণ পরিবেশে বেশিক্ষণ থাকা যাবে না।

৬. বেশি সময় ধরে কম্পিউটারের মনিটর ও টিভির সামনে থাকা পরিহার করতে হবে।

৭. মাইগ্রেন শুরু হয়ে গেলে প্রচুর পরিমাণে পানি পান করতে হবে (বিশেষ করে বমি হয়ে থাকলে) ও বিশ্রাম নিতে হবে।

আরো পড়ুন  ঘরে বসে ওজন কমানোর ১২টি সহজ কৌশল

৮. সম্ভব হলে ব্যথা শুরু হলে মাথায় ঠান্ডা কাপড় জড়িয়ে রাখা যেতে পারে।